সুখী হতে চাইলে বাদ দিন কিছু বিষয়

 

 

সৈয়দা সুলতানা : সবাই তো সুখি হতে চায়, কেউ সুখি হয়, কেউ হয় না। গানের এই কথার সাথে বাস্তবতারও রয়েছে যথেষ্ট মিল। বাস্তব জীবনে সুখী হতে কে না চায়। তবে জীবনে সুখী হতে চাইলে জীবনের অনেক কিছু এড়িয়ে চলতে হবে।

 

অন্যদিকে জীবনে অনেককিছু আবার যোগও করতে হয়। সেই সাথে দৃষ্টিভঙ্গিও বদলাতে হবে। রাখতে হবে ইতিবাচক মনমানসিকতা। নানা কারণে অনেক সময়ই মানুষ অসুখী জীবন কাটায়। আসুন জেনে নেই জীবনে সুখী হতে চাইলে কোন বিষয়গুলো এড়িয়ে এড়িয়ে চলা উত্তম –

 

অতীত ভূলে যান : আপনি অতীতে হয়তো অনেক ভুল করেছেন। কিন্তু সেগুলোকে মনে না রেখে বর্তমানে এগিয়ে যাওয়াটা বুদ্ধিমানের। সুখী ও সফল হতে চাইলে অতীত মনে রেখে চলা যাবে না।

 

অন্যর উপর দোষা না চাপানো : ভুল স্বীকার করার মানসিকতা রাখতে হবে। নিজের দোষ অন্যর উপর না চাপিয়ে নিজেকে সংশোধনের সুযোগ করে দিন তাতে আপনারই ভালো। দেখবেন ধীরে ধীরে জীবন সুন্দর হয়ে যাচ্ছে।

 

ইচ্ছাশক্তি : যে কোন কাজের জন্য ইচ্ছাশক্তিটাই বড় ব্যাপার। কোন অজুহাত না রেখে কাজ করার মানসিকতা তৈরি করুন। দেখবেন জীবন সহজ হয়ে যাচ্ছে।

 

নেতিবাচক ভাবনা থেকে দূরে থাকুন : নিজের সম্পর্কে ইতিবাচক ভাবনা রাখুন। কখনো নিজেকে কোন কারণে ছোট ভাববেন না। অন্যদের প্রতিও ইতিবাচক ভাবনা পোষণ করুন। দেখবেন জীবনে সুখ ফিরে আসছে। সেই সাথে নেতিবচক মানসিকতার মানুষদেরকে এড়িয়ে চলুন।

 

ক্ষমা করার মানসিকতা : সফল ও সুখী হতে চাইলে অভিযোগ না করে ক্ষমা করার মানসিকতা তৈরি করুন। এটা সুখী হওয়ার জন্য অন্যতমে একটি কারণ।নিজের মধ্যে ক্ষমা করার অভ্যাস গড়ে তুলুন।

 

ভবিষ্যৎ নিয়ে দুশ্চিন্তা না করা : সুদূর ভবিষ্যতে কী হবে তা নিয়ে দুশ্চিন্তায় না থাকা। ভবিষ্যৎকে ভবিষ্যতের উপর ছেড়ে দিয়ে চিন্তা মুক্ত থাকুন। এটা নিয়ে দুশ্চিন্তা না করে বর্তমানকে উপভোগ করুন।